মায়ের কোলে চড়ে প্রতিবন্ধীর স্বপ্ন জয়

আমাদের জীবনের শুরুটাই হলো মায়ের কোলে চড়ে।আর প্রতিটি সন্তানেরই মায়ের কোলে চড়ে স্বপ্ন জয় হয়।মায়ের কোলে চড়ে প্রতিবন্ধীর স্বপ্ন জয়।এই শিরোনামটি আলোড়িত করেছে সবাইকে।    মায়ের ভালোবাসা উৎসাহ ছাড়া আমাদের উজ্জল ভবিষ্যৎ কল্পনা করা যায়না।মা বাবার হাত ধরেই আমাদের যত স্বপ্ন পূরণের গল্প।তেমনি একটি বাস্তব জীবনের মানবতার গল্প মায়ের কোলে চড়ে ভর্তি পরীক্ষা দেওয়া অতঃপর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হওয়ার সুযোগ পেলো প্রতিবন্ধী ছেলে।

পৃথিবীতে সবচেয়ে বিশ্বস্ত ও নিরাপদ গন্তব্যস্থলে যাওয়ার প্রধান ও একমাত্র মাধ্যম মায়ের কোল।প্রতিবন্ধী ছেলের এই ঘটনা তারই স্বাক্ষী।

পৃথিবীতে মায়ের চেয়ে আপন আর কেউ নেই।মায়ের ভালোবাসা,পরিশ্রম,ত্যাগ সন্তানের জন্য সবচেয়ে বড় আশীর্বাদ।একমাত্র মা হচ্ছেন সন্তানের সবচেয়ে আপনজন।পৃথিবীতে বাব,ভাই,বোন,স্ত্রী ভূলে যায় কিন্তু কখনও সন্তান ছেড়ে যায়না।

তেমনি মায়ের ভালোবাসা,মায়ের দায়িত্বের এক উজ্জল দৃষ্টান্ত মিডিয়ার মাধ্যমে আমরা কিছুদিন আগে দেখলাম।

হৃদয় সরকার নামের নেত্রকোনার এক প্রতিবন্ধী ছেলেকে কোলে করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষা দিতে নিয়ে আসেন মা।ব্যাপক আলোচনার জন্ম দেওয়া সেই মায়ের কোলের প্রতিবন্ধী ছেলেটি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির সুযোগ পেলো।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষার ফলাফলে তিনি ‘খ’ ইউনিট থেকে ৩৭৪০ তম হয়েছেন।

সবার সাথে উন্মুক্ত প্রযোগীতায় উত্তীর্ণ হলেও প্রতিবন্ধী কোটায় ভালো সাবজেক্টে ভর্তির সুযোগ পাবেন হৃদয় সরকার।

মায়ের কোলে চড়ে স্বপ্ন জয় প্রতিবন্ধীর তথা সকল সন্তানের।সকল সন্তানের দায়িত্ব হলো মা বাবার সর্বোচ্চ সেবা যত্ন নিশ্চিত করাা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here