শরীর সুস্থ রাখতে আমের যত পুষ্টিগুণ।

শরীর সুস্থ রাখতে আমের যত পুষ্টিগুণ।
ছবিঃ সংগৃহীত

শরীর সুস্থ রাখতে আমের যত পুষ্টিগুণ। আম খুবই সুস্বাদু একটি মৌসুমি ফল।আমে রয়েছে প্রচুর পুষ্টিগুণ যা আমাদের শরির ও মনকে সুস্থ ও সতেজ রাখতে খুবই কার্যকরী ভূমিকা পালন করে।বলা হয়ে থাকে ফলের রাজা আম।

শরীর সুস্থ রাখতে আমের যত পুষ্টিগুণ। নিচে আমের পুষ্টিগুণ সম্পর্কে আলোচনা করা হলো।

  • প্রতিদিন ১০০ গ্রাম আম খেলে মুখের কালো দাগ এবং মুখমন্ডলের ব্লাকহেড দূর করতে সহায়তা করবে।
  • আমে রয়েছে পর্যাপ্ত খনিজ লবন।যা আমাদের চুল,নখ,দাঁত ইত্যাদি মজবুত করতে কার্যকরী ভূমিকা রাখে।
  • পাকা আম নিয়মিত খেলে ত্বকের সৌন্দর্য বৃদ্ধি করে ত্বক উজ্জ্বল করে তুলতে ভূমিকা রাখে।আম মুখের ব্রণ সমস্যার সমাধানে ভূমিকা রাখে।
  • পাকা আমের মধ্যে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন,মিনারেল,এন্টি-অক্সিডেন্ট সমৃদ্ধ থাকায় হজমে দ্রুত হজমে সহায়তা করে।
  • আমে পর্যাপ্ত পরিমাণ ভিটামিন – বি কমপ্লেক্স রয়েছে যা শরীরের স্নায়ু গুলোতে অক্সিজেন সরবরাহ করে।শরীর রাখে সতেজ।
  • নিয়মিত আম খেলে হার্ট সুস্থ ও সুরক্ষিত রাখে।হার্টের সমস্যা রোধে আম কার্যকর ভূমিকা রাখে।         
  • আমে রয়েছে পর্যাপ্ত পরিমাণ ভিটামিন-এ। এতে আম খেলে আমাদের শরীরের দৃষ্টিশক্তি বৃদ্ধি করতে সহায়তা করে।
  • পাকা আম প্রচুর টাশিয়াম সমৃদ্ধ হওয়ায় আম খেলে হার্টবিটকে সচল থাকে এবং  রক্তস্বল্পতা রোধে সহায়তা করে।
  • আমের যথেষ্ট পরিমাণ এসিড আমাদের শরীরের খার ধরে রাখতে সহায়ক ভূমিকা পালন করে।
  • কাঁচা আমে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন-সি থাকে যা দাঁত ও হাড় গঠনে সহায়তা করে।
  • আম শরীর গঠনে ভূমিকা রাখে।আম খেলে দেহের ক্ষয়রোধ করে শরীরের স্হুল কমিয়ে আনে।যা শরীর গঠনে ইতিবাচক ভূমিকা রাখে।
  • আম ডায়েটের জন্য উপযোগী একটি ফল।আমে রয়েছে অধিক পরিমাণে ফাইবার।যা পরিপাক ক্রিয়াকে উন্নত করে।অতিরিক্ত ভুঁড়ি বৃদ্ধি প্রক্রিয়া বাধা হিসেবে কাজ করে।
  • আম ২৫ ধরনের ক্যারটিনয়েড সমৃদ্ধ ফল।যা শরীর সুস্থ রাখার জন্য খুবই প্রয়োজনীয়।
  • কপার,পটাশিয়াম, সেলেনিয়াম ও জিংক প্রচুর পরিমাণে রয়েছে আমের মধ্যে।

আরও পড়ুনঃ https://sonalikantha.com/সকালে-কাঁচা-ছোলা-খাওয়ার-স/

  • আমে রয়েছে প্রচুর আয়রন যা অ্যানিমিয়া রোগের প্রাকৃতিক ঔষধ।আম গর্ভবতী মহিলাদের আয়রন ও ক্যালসিয়ামের ঘাটতি পূরণ করে।আম প্রচুর পরিমাণে গ্লুটামিন সমৃদ্ধ যা সৃতি শক্তি ও মনযোগ বৃদ্ধিতে সহায়ক।
  • আমের মধ্যে বিদ্যমান বিভিন্ন পুষ্টি উপাদান কিডনিতে পাথর হওয়ার ঝুঁকি কমায়।
  • আমে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন-ই।রক্তে কোলেস্টেরল এর পরিমাণ নিয়ন্ত্রণ ও ডায়াবেটিস প্রতিরোধে আমের গুরুত্ব অনেক।
  • প্রচন্ড গরমের মধ্যে এক গ্লাস আমের জুস শরীরকে ঠান্ডা করে দেয় নিমিষেই। গরমে হিটস্ট্রোক থেকেও রক্ষা পাওয়া যায় আম খেলে।
  • আমের ভেষজ গুণ স্কিন ক্যান্সার সহ নানা জটিল রোগ হতে মুক্তি সুরক্ষা করে।                                

শরীর সুস্থ রাখতে আমের যত পুষ্টিগুণ।শরীরে পুষ্টির চাহিদা মেটাতে আমের গুণাগুণ অনেক।।বেশি বেশি আম খান সুস্থ থাকুন।দেহ ও মন সুস্থ রাখতে আমের জুড়ি নেই।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here